অটিজমকে জাতীয় রোগ ঘোষণা করা হোক!

কিছুদিন ধরে সরকারী প্রচার-প্রচারণায় বোধ হচ্ছে যে, অটিজম-কে শিগগীরই জাতীয় রোগ ঘোষণা করা হবে। অটিজম হলো বুদ্ধি-প্রতিবন্ধীত্বের একটি বিশেষ ধরন। কিন্তু শেখ হাসিনা তার সুযোগ্যা শিশু বিশেষজ্ঞ কন্যা পুতুলের নিকট থেকে জ্ঞান লাভ করে বিটিভি’র প্রচারে মানুষকে বোঝাতে চাচ্ছে যেন প্রতিবন্ধীত্বের মানেই হলো অটিজম। দেশে প্রতিবন্ধীত্বের বহু ধরন রয়েছে। বিশেষত আমাদের দেশে অন্ধ, কালা/বোবা, বুদ্ধি প্রতিবন্ধী, পঙ্গুসহ বহু ধরনের প্রতিবন্ধী জনগণ রয়েছেন। তারা প্রায় সবাই তাদের পরিবারের জন্য বোঝা, বেদনা, কষ্টের কারণ। অটিজম-ও এক ধরনের বুদ্ধি প্রতিবন্ধীত্বের সমস্যা, যা পরিবারে বড় বিপর্যয়ের মত বিরাজ করে। তাই, নিশ্চয়ই এ সম্পর্কেও ভাল ধারণা ও চিকিৎসা সমাজে প্রয়োজন।
কিন্তু আর সব কিছু বাদ দিয়ে সম্প্রতি বলা যায় শুধু অটিজম-কে নিয়ে মাতামাতির রহস্যটা কী? সেটা বুঝতে অসুবিধা হবে না যদি এ তথ্যটা থাকে যে, রাজকন্যা পুতুল সম্প্রতি অটিজম নিয়ে কাজ করছেন এবং তিনি বাংলাদেশে খুব সক্রিয় হয়ে উঠেছেন। এর সাথে শেখ হাসিনার রাজনৈতিক উত্তরসূরী হিসেবে তাকে ফোকাসে আনার প্রজেক্ট কতখানি জড়িত তা ভবিষ্যতেই বলা ও দেখা যাবে। তবে হাসিনা ও আওয়ামী লীগের যে এটা জরুরি প্রয়োজন হয়ে পড়েছে তা বলাই বাহুল্য।
দেশের অগণিত বিভিন্ন ধরনের প্রতিবন্ধী জনগোষ্ঠির সকলের জন্য মনোযোগ ও চিকিৎসাসহ অন্যান্য সুবিধার দিকে নজর না দিয়ে অটিজম নিয়ে মাতামাতি সৎ উদ্দেশ্য প্রণোদিত নয় বলে ধারণা করা অন্যায় হবে না।

About andolonpotrika

আন্দোলন বুলেটিনটি হলো বিপ্লবী শ্রমিক আন্দোলন ও বিপ্লবী ছাত্র-যুব আন্দোলনের একটি অনিয়মিত মুখপত্র
This entry was posted in আন্দোলন ১১. Bookmark the permalink.

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s